FASHON
  • ট্রেন্ডিং I ইনস্টা লাইফ

    স্মার্টফোন ব্যবহার করছেন, অথচ তাতে ইনস্টাগ্রাম ইনস্টল করা নেই, এমন মানুষ আজকের দিনে কম। বিশেষ করে এ যুগের ইয়াংস্টারদের মধ্যে বেশ ক্রেজ তৈরি করেছে এই অ্যাপ। ইনস্টাগ্রাম একটি মোবাইল, ডেস্কটপ আর ইন্টারনেটনির্ভর ফটো শেয়ারিং অ্যাপ, যা কিনা ২০১০ সাল থেকে আইওএস এবং ২০১২ সাল থেকে অ্যান্ড্রয়েড সিস্টেম মাতাচ্ছে। বর্তমানে ইনস্টাগ্রামে সক্রিয় ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৫০০ মিলিয়নের ওপর, যা টুইটারকেও হার মানায়। অন্য যেকোনো সোশ্যাল মিডিয়ার তুলনায় এটি ৫ গুণ দ্রুত বাড়ে। প্রতিদিন ৮০ মিলিয়নের বেশি ছবি শেয়ার করা হয় ইনস্টাগ্রামের মাধ্যমে। অ্যাপটি ইনস্টল ও ব্যবহার করা বেশ সহজ হলেও ফলোয়ারদের নজরে নিজের ইনস্টাগ্রাম নিউজফিড অনেক বেশি আকর্ষণীয় করে তুলতে বেশ কিছু পদ্ধতি মাথায় রাখতে হয়।
    মুড অ্যান্ড পার্সোনালিটি
    সবার আগেই ঠিক করে নিন, আপনার ফলোয়ারদের আপনি কী অনুভব করাতে চান অর্থাৎ যখন কেউ আপনার প্রোফাইল দেখবে সে খুশি হবে নাকি এক্সাইটেড, উদাসীন হবে কিংবা চিয়ারফুল- আগেভাগেই ঠিক করে নিন। এমনকি নিজের ইনস্টাগ্রাম ফিডের মাধ্যমে আপনি ফলোয়ারদের ক্ষুধার্তও করে তুলতে পারেন।
    ব্যাকগ্রাউন্ডস ফর ফ্ল্যাট ফটোগ্রাফি
    যেকোনো নির্দিষ্ট থিমকে তুলে ধরতে ব্যাকগ্রাউন্ড অনেক বেশি সহায়ক। এ ক্ষেত্রে এমন ২ থেকে ৩টা ব্যাকগ্রাউন্ড বাছাই করে ফেলা উচিত, যা পুরো ইনস্টা ফিডের থিমের সঙ্গে খাপ খায়। বেশি এক্সপেরিমেন্ট করতে না চাইলে সিম্পলি সাদা, ব্রাইট কালারড কিংবা টেক্সচারড ব্যাকড্রপ ব্যবহার করতে পারেন।
    কালার স্টোরি
    কথায় আছে, ‘ফার্স্ট ইম্প্রেশন ইজ লাস্টিং’ আর প্রথম ইম্প্রেশনেই নজর কাড়তে কালার কম্বিনেশনের চেয়ে সহজ উপায় নেই। এখানে বেছে নিতে পারেন ওই সব কালার, যা আপনার ফিডের মুড আর পার্সোনালিটির সঙ্গে মানানসই। যেমন খুব বেশি প্লেফুল মুডের থিম হলে ব্রাইট কালারগুলোর কম্বিনেশন করা যেতে পারে।
    ফিল্টার এবং এডিটিং
    বিভিন্ন রকমের মজাদার এবং সহজবোধ্য এডিটিং অ্যাপের কল্যাণে ফটো এখন অনেকটা খেলার মতো। তবে খুব বেশি এডিটিং আবার ছবির আসল আমেজ নষ্ট করে দিতে পারে। আর ইনস্টাগ্রামের নিজস্ব কিছু ফিল্টার তো রয়েছেই। তবে এসব ফিল্টার আপনার পছন্দ না হলে নিজের মতো করেই কালার কারেকশন করে নিতে পারেন ছবির। এ ক্ষেত্রে ব্রাইটনেস, টেম্পারেচার, কন্ট্রাস্ট, শার্পনেস ইত্যাদি কোন মাত্রায় করছেন, তা মনে রাখা ভালো। এতে করে পরবর্তী ছবিগুলো এডিট করতে সুবিধা তো হবেই, আবার ফিডের সব ছবির মধ্যে একটা সামঞ্জস্য পরিলক্ষিত হবে।
    প্রপার লাইটিং
    যেকোনো ভালো ছবির পূর্বশর্ত পর্যাপ্ত লাইটিং। ইনস্টাগ্রাম ফিড সাজানোর সময় লাইটিংয়ের ব্যাপারটা খুব ভালোভাবে মাথায় রাখতে হবে। চেষ্টা করতে হবে একই ধরনের লাইটশেডের ছবি যেন ফিডজুড়ে থাকে। এটা আপনার ইনস্টা প্রোফাইলকে আরও বেশি আকর্ষণীয় করে তুলবে। আর যদি কোনোভাবে লাইটিংয়ের সমস্যা হয়েই যায়, তবে তাও এডিটিংয়ের মাধ্যমে ঠিক করা সম্ভব।
    ব্যালান্সিং দ্য ফিড
    সবশেষে ইনস্টাগ্রাম ফিডকে নজরকাড়া করে তুলতে ব্যালান্সিং ইজ দ্য আল্টিমেট কি! কোনো ছবি যাতে মিক্সআপ না হয়ে যায়, আবার হারিয়ে না যায়, সে জন্য ছবিগুলোর মাঝে মাঝে বোল্ড পোস্টগুলো রাখা ভালো। হতে পারে সুন্দর গ্রাফিক্যাল ছবি, লাইফস্টাইল শট কিংবা সেলফি। এতে সব ছবি নিজ নিজ জায়গায় ফুটে ওঠে কোনো বাধা ছাড়াই।
        শিরীন অন্যা


    Subscribe & Follow

    JOIN THE FAMILY!

    Subscribe and get the latest about us
    TRAVELS
    LIFESTYLE
    RECENT POST
    বোটক্সের বদলে
    19 January, 2018 7:11 pm
    আলোকচিত্র
    19 January, 2018 7:11 pm
    BANNER SPOT
    200*200
    SOLO PINE @ INSTRAGRAM
    FIND US ON FACEBOOK